প্রভাত বাংলা

site logo
Breaking News
||নতুন বাড়িতে গৃহপ্রবেশ করার দিন দুধ কেন ফুটানো উচিত? এর গুরুত্ব ও স্বীকৃতি জানুন||খরমাস 2024 তারিখ: মার্চ মাসে খরমাস কখন উদযাপিত হয়? এই দিন থেকে বিবাহ নিষিদ্ধ করা হবে||বাঁকে বিহারী মন্দিরে কেন প্রতি 2 মিনিটে পর্দা টানা হয়? জেনে নিন এর রহস্য||সংবিধান-গণতন্ত্র ও সত্যকে বাঁচাতে মিডিয়া ব্যর্থ, বলেছেন সাবেক সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি কুরিয়ান জোসেফ||WPL 2024: শোভনা আশা কে? ৫ উইকেট নিয়ে ইতিহাস গড়লেন||কল্যাণী AIIMS-এর উপর ₹15 কোটির জরিমানা, আগামীকাল উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী||পুলিশ সুপার সন্দেশখালিকে বলেন, “অভিযোগ করতে থানায় বা প্রশাসন ক্যাম্পে আসুন”||‘জমি নিলে ফেরত দাও’, সন্দেশখালিতে গিয়ে অভিষেকের বার্তা শোনালেন সেচমন্ত্রী||নাভালনির মৃতদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর, পুতিন সরকার নীরব||লখনউতে মুখ্যমন্ত্রী যোগীর কনভয়ের গাড়ির সঙ্গে বেশ কয়েকটি গাড়ির সংঘর্ষ, এক ডজন আহত

 রামায়ণ-মহাভারতকে কাল্পনিক বলেছেন কর্ণাটকের শিক্ষক

Facebook
Twitter
WhatsApp
Telegram
মহাভারত

কর্ণাটকের ম্যাঙ্গালুরুতে এক কনভেন্ট স্কুলের শিক্ষক রামায়ণ ও মহাভারতকে কাল্পনিক বলেছেন। শিক্ষক ছাত্রদের বলেছিলেন যে ভগবান রাম কল্পনার ভিত্তিতে তৈরি একটি চরিত্র। বিরোধ চরমে উঠলে সোমবার (13 ফেব্রুয়ারি) ওই শিক্ষককে বরখাস্ত করে স্কুল কর্তৃপক্ষ।বিষয়টি ম্যাঙ্গালুরুর সেন্ট গেরোসা ইংলিশ এইচআর প্রাইমারি স্কুলের। শনিবার (10 ফেব্রুয়ারি) ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করেছে দক্ষিণপন্থী সংগঠনের লোকজন। সোমবার, 12 ফেব্রুয়ারি বিজেপি বিধায়ক বেদব্যাস কামাথও বিক্ষোভে অংশ নিয়েছিলেন।

বিজেপি বিধায়কের অভিযোগ, ওই শিক্ষক ছাত্রদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বিরুদ্ধেও কথা বলেছেন। শিক্ষক ক্লাসে 2002 সালের গোধরা দাঙ্গা এবং বিলকিস বানো গণধর্ষণ উল্লেখ করেছিলেন এবং শিশুদের মনে ঘৃণা তৈরি করার চেষ্টা করেছিলেন।

বিধায়ক বললেন- শিক্ষক বিন্দি-গজরা পরা বন্ধ করলেন

বিজেপি বিধায়ক স্কুলে বলেছিলেন – আপনার বোনরা (শিক্ষক) আমাদের হিন্দু ছাত্রীদের বিন্দি, গজরা বা পায়ের পাতা না পরতে বলছে। তিনি বলেন যে ভগবান রামের উপর দুধ ঢালা একটি অপচয়। কেউ আমাদের বিশ্বাসের অবমাননা করলে আমরা চুপ থাকব না।

স্কুল একটি বিবৃতি জারি এবং স্পষ্ট
শিক্ষককে বরখাস্ত করার পর বিদ্যালয়টি চিঠি দেয়। এতে বলা হয়, সেন্ট গেরোসা স্কুলের ইতিহাস 60 বছরের পুরনো। স্কুলে আজ পর্যন্ত এমন কোনো ঘটনা ঘটেনি। এই দুর্ভাগ্যজনক ঘটনা আমাদের এবং আপনার মধ্যে অবিশ্বাস তৈরি করেছে। আমরা ঘটনার বিষয়ে ব্যবস্থা নিয়েছি। এটি আপনার এবং আমাদের মধ্যে বিশ্বাস পুনর্নির্মাণে সহায়তা করবে৷

ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে এখনো কোনো মামলা হয়নি। বিষয়টি তদন্ত করছেন উপ-পরিচালক পাবলিক ইনস্ট্রাকশন (ডিপিপিআই)।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর

ট্রেন্ডিং খবর