প্রভাত বাংলা

site logo
Breaking News
||মুসলিম ভোট পেতে সাধুদের অপমান করছেন মুখ্যমন্ত্রী, মমতাকে আক্রমণ করলেন প্রধানমন্ত্রী মোদী||সীতা কুন্ড: মা সীতার অগ্নিপরীক্ষা হয়েছিল এখানে, এই কুন্ডের জল সবসময় থাকে গরম ||তাহলে কি খুঁজে পাওয়া গেছে আলাদিনের আসল প্রদীপ? ‘জাদু’ দেখে স্তম্ভিত হয়ে যাবেন||নিজের ভবিষ্যৎ ঠিক করে ফেলেছেন এমএস ধোনি, বড় বিবৃতি দিলেন সিএসকে কোচ||ভুলেশ্বর মহাদেব: এই মন্দিরে পিন্ডির নিচে দেওয়া হয় প্রসাদ , সন্ধ্যা আরতির মাধ্যমে পাত্র খালি হয়ে যায়||অপেক্ষা শেষ, বর্ষা এসেছে; হলুদ সতর্কতা জারি করল IMD, জানুন কি বলছে সর্বশেষ আপডেট?||সৌদি ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে আমেরিকার এনএসএ দেখা, প্রতিরক্ষা চুক্তি নিয়ে সমঝোতা ?||উত্তরপ্রদেশে রাহুল ও অখিলেশের সমাবেশে নিয়ন্ত্রণের বাইরে ভিড় পদদলিত হল, বহু আহত||টিম ইন্ডিয়ার কোচ হতে অস্বীকার করলেন জাস্টিন ল্যাঙ্গার ||কেজরিওয়ালকে বিজেপি অফিসে যেতে বাধা দেয় পুলিশ ,বিক্ষোভ শেষ 

বাংলায় নন-আইপিএস অফিসাররা আইপিএস পদের দায়িত্ব পেয়েছেন, শুভেন্দু অধিকারীর অভিযোগে তোলপাড়

Facebook
Twitter
WhatsApp
Telegram
শুভেন্দু অধিকারী

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের শাসনামলে নন-আইপিএস অফিসারদের আইপিএস অফিসার পদের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। বিরোধী নেতা শুভেন্দু অধিকারী তার এক্স হ্যান্ডেলে দাবি করেছেন যে নন-আইপিএস অফিসারদের আইপিএস ক্যাডারের একচেটিয়া পদ রয়েছে। তাদের অপসারণ করা উচিত। তৃণমূলের পাল্টা অভিযোগ, শীর্ষ পদে থাকা এক রাজনৈতিক নেতা সোশ্যাল মিডিয়ায় ভুল তথ্য ছড়াচ্ছেন। শুভেন্দু অধিকারীর পোস্টটি অবিলম্বে সরানোর দাবি জানিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস।

বিরোধীদলীয় নেতা শুভেন্দু অধিকারী বলেন, “পুলিশের পদের অপব্যবহার করা হচ্ছে। আমি নির্বাচন কমিশনকে বলব এই রাজ্যে আইনের শাসন ও গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে, শুধু ভোটের দিন নয়, এখন থেকে প্রয়োজনে অন্য রাজ্য থেকে পুলিশ অফিসার নিয়োগ করে। ,

এখানে, শুভেন্দু অধিকারীর এই পোস্টের পর রাজ্য পুলিশ ইতিমধ্যেই এই অভিযোগকে ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছে। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের নিয়ম অনুসারে রাজ্য পুলিশ অফিসাররা নির্দিষ্ট পদে অধিষ্ঠিত হন।

শুভেন্দু অধিকারীর অভিযোগে আলোড়ন সৃষ্টি হয়

উল্লেখ্য, এসব কর্মকর্তার কেউ পুলিশ সুপার পদে আবার কেউ সিআইডিতে আছেন। সূত্রের খবর, শুভেন্দু অধিকারীর অভিযোগ খতিয়ে দেখতে কমিশনের তরফে ইতিমধ্যেই নোডাল অফিসার ইনচার্জকে প্রয়োজনীয় নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এই প্রসঙ্গে নির্বাচনের আগেই রাজ্য পুলিশের ডিজি বদল করেছে কমিশন। WBCS চার জেলা কমিশনারকে অপসারণ করেছে। তাদের জায়গায়, চার আইএএস অফিসারকে জেলা ম্যাজিস্ট্রেটের দায়িত্ব দিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

চার জেলা ম্যাজিস্ট্রেটের বদলির আদেশের পর ডব্লিউবিসিএস অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনও কমিশনে চিঠি পাঠিয়েছে। সমিতির পক্ষ থেকে বলা হয়, অতীতে বিভিন্ন নির্বাচনে তারা দক্ষতার সঙ্গে বিভিন্ন এলাকায় কাজ করেছেন।

শুভেন্দুর অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেছে টিএমসি
শুভেন্দু অধিকারী তার এক্স হ্যান্ডেলে লিখেছেন যে সমস্ত WBCS অফিসার খারাপ নয়। কমিশনের এটাকে IAS বনাম WBCS-এ অতি সরলীকরণ করা উচিত নয়। কিছু ডাব্লুবিসিএসের প্রশংসা করার সময়, ‘ডালদাস’ আইএএসকে অপসারণের দাবি করেছিল। শুভেন্দু অধিকারীর মতে, কিছু WBCS অফিসার আইএএস অফিসারদের চেয়ে বেশি দক্ষ।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর

ট্রেন্ডিং খবর