প্রভাত বাংলা

site logo
Breaking News
||Dhruv Jurel : ধ্রুব জুরেল কে? কারগিল যুদ্ধের নায়ক বাবা,  জেনে নিন গল্প!||Sandeshkhali :  কুনালের দাবি, সাত দিনের মধ্যে শেখ শাহজাহানকে গ্রেফতার করা হবে||Sandeshkhali : শাহজাহানের বিরুদ্ধে সন্দেশখালি থানায় নতুন এফআইআর,নাশকতাসহ আরও কী কী অভিযোগ?||Pankaj Udhas : চলে গেলেন গজল সম্রাট পঙ্কজ উধাস, 72 বছর বয়সে পৃথিবীকে বিদায় জানালেন গজল সম্রাট||Lionel Messi : ৯২তম মিনিটে লিওনেল মেসির গোলে হার এড়ালো মায়ামি||Geeta Koda : বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন কংগ্রেস সাংসদ গীতা কোডা, বলেছেন- তাদের নীতি বা চিন্তা নেই||Nafe Singh Rathee : হরিয়ানায় আইএনএলডি নেতা নাফে সিং রাঠির হত্যার তদন্ত করবে সিবিআই, পাওয়া গেছে খুনিদের সিসিটিভি ফুটেজ||Maratha movement :মহারাষ্ট্রের  জালনায় বাস পুড়িয়ে দিয়েছে মারাঠা আন্দোলনকারীরা, তিনটি জেলায় ইন্টারনেট বন্ধ||Dhruv Jurel :পিচের মাঝখানে এমন কিছু করেন ধ্রুব জুরেল, তখনই বৃষ্টি হয়, কুলদীপ যাদবের বড় প্রকাশ||Job Scam : নিয়োগের দাবিতে রাস্তায় বঞ্চিত চাকরি প্রার্থীরা

Israel Hamas War : গাজা শহরের বাইরে সেনাদের সঙ্গে হামাস যোদ্ধাদের সংঘর্ষ, যুদ্ধে এ পর্যন্ত ৯৭০০ জনের বেশি প্রাণহানি হয়েছে

Facebook
Twitter
WhatsApp
Telegram
গাজা

ইসরায়েল-হামাস যুদ্ধের আজ 24 তম দিন। এদিকে ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর ট্যাংক নিয়ে গাজা শহরে প্রবেশের খবর পাওয়া গেছে। আল জাজিরার মতে, গাজা শহরের উপকণ্ঠে হামাস যোদ্ধারা সৈন্যদের সাথে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়েছে, যার পরে ইসরায়েলি সেনাবাহিনী এখন এখান থেকে প্রত্যাহার করছে।উত্তর গাজা থেকে দক্ষিণ গাজার সাথে সংযোগকারী গাজা শহরের একটি প্রধান সড়ক রয়েছে। বন্ধ হওয়ার খবরও রয়েছে। মানুষকে ঘরে থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। যোগাযোগ বন্ধ হয়ে গেছে।

এখানে যুদ্ধে 9700 জনের বেশি মানুষ মারা গেছে। 1400 এরও বেশি ইসরায়েলি নাগরিক নিহত হয়েছে। একই সময়ে, 8,306 ফিলিস্তিনিও মারা গেছে।

পশ্চিম তীরে প্রবেশকারী ইসরায়েলি ট্যাঙ্কগুলিতে পাথর ছোঁড়া হয়েছে
পশ্চিম তীরের জেনিন এলাকায় ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর ট্যাঙ্কও প্রবেশ করেছে। এখানে ফিলিস্তিনিরা ট্যাঙ্ক লক্ষ্য করে পাথর ছুড়েছে। একই সময়ে, টাইমস অব ইসরায়েলের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জেনিন ব্রিগেডের প্রধান ওয়াইম আল হানুন ইসরায়েলি বিমান হামলায় নিহত হয়েছেন।

টাইমস অব ইসরায়েল জানায়, ইসরায়েল সীমান্তের কাছে উত্তর গাজার ইরেজ শহরে ইসরায়েলি বাহিনীর সঙ্গে হামাস যোদ্ধাদের সংঘর্ষ হয়। এই যোদ্ধারা টানেল থেকে বেরিয়ে এসে সৈন্যদের উপর আক্রমণ শুরু করে। সেনাবাহিনী বলছে যে তারা এখানে অনেক যোদ্ধাকে হত্যা করেছে।

সৈন্যরা গাজায় তাদের পতাকা উত্তোলন করছে
রোববার অভিযানের পর ইসরায়েলের প্রতিরক্ষা বাহিনীর সৈন্যরা গাজায় তাদের পতাকা উত্তোলন করেছে। একই সময়ে, গাজায়, মানুষ মশাল নিয়ে ধ্বংসস্তূপের মধ্যে তাদের প্রিয়জন এবং নিখোঁজ স্বজনদের লাশ খুঁজছে।

চিকিৎসকরাও অন্ধকারে চিকিৎসা করছেন। আসলে যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর 10 অক্টোবর ইসরাইল গাজায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ করে দেয়। এরপর থেকে মানুষ অন্ধকারে দিন কাটাচ্ছে। হাসপাতালগুলোতেও বিদ্যুৎ নেই। চিকিৎসায় অসুবিধা হচ্ছে।এদিকে মার্কিন ভাইস প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস বলেছেন, আমরা যুদ্ধের জন্য ইসরাইল বা গাজায় আমাদের সেনা পাঠাচ্ছি না।

একদিনের শিশুকে হত্যা
উদয় আবু মহসিন ইসরায়েলি বোমা হামলার শিকার হন। তিনি 28 অক্টোবর জন্মগ্রহণ করেন। 29 অক্টোবর তাকে হত্যা করা হয়। একজন ফিলিস্তিনি ফটোসাংবাদিক কাফনে মোড়ানো লাশের একটি ছবি শেয়ার করেছেন। সাংবাদিক বলেন- তার জন্ম সনদও তৈরি হয়নি, কিন্তু তার মৃত্যু সনদ তৈরি হয়েছে।

হামাসকে নির্মূল করতে হলে তার টানেল নেটওয়ার্ক ধ্বংস করতে হবে: সেনাবাহিনী
ইসরায়েলি সেনাবাহিনী বলছে, হামাসের প্রধান ও অন্যান্য প্রধান ঘাঁটি হাসপাতাল, স্কুল, মসজিদের অধীনে রয়েছে। হামাস টানেল থেকে কাজ করে। এই সংগঠনকে মূলোৎপাটন করতে হলে গাজার টানেল নেটওয়ার্ক ধ্বংস করতে হবে। একই সঙ্গে হামাস বলছে, তারা এসব সুড়ঙ্গে জিম্মি করে রেখেছে।

WHO বলেছে- হাসপাতাল খালি করা অসম্ভব
উত্তর গাজার আল কুদস হাসপাতাল খালি করতে বলেছে ইসরাইল। এ বিষয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, হাসপাতালে রোগীর সংখ্যা অনেক বেশি। এখানে প্রতিদিন শত শত আহত মানুষ চিকিৎসা ও প্রাথমিক চিকিৎসা নিতে আসছে। এমতাবস্থায় হাসপাতালগুলো খালি করা অসম্ভব।

একই সঙ্গে আল কুদস হাসপাতালের কাছে ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর হামলার অভিযোগ তুলেছে হামাস। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, মানুষজন দুর্দশায় এদিক ওদিক ছুটছেন।

গাজায় পানি সরবরাহ শুরু করেছে ইসরাইল
টাইমস অব ইসরায়েল জানায়, বন্ধ পাইপলাইন পুনরায় চালু করেছে ইসরাইল। এর মাধ্যমে গাজায় পানি পৌঁছায়। যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর ইসরাইল 10 অক্টোবর পানি সরবরাহ বন্ধ করে দেয়।এটি চালু হওয়ার পর এখন প্রতিদিন 2 কোটি 85 লাখ লিটার পানি গাজায় পৌঁছাবে। তবে এটি যুদ্ধের আগে দেওয়া পানির অর্ধেক। এর আগে 4 কোটি 90 লাখ লিটার পানি দেওয়া হয়েছিল।

ফিলিস্তিনিরা জাতিসংঘের ত্রাণ সংস্থা থেকে আটার বস্তা নিয়ে গেছে
গাজায় বসবাসরত হাজার হাজার ফিলিস্তিনি জাতিসংঘের ত্রাণ ও কর্ম সংস্থার গুদাম ও বিতরণ কেন্দ্রে প্রবেশ করেছে। এখানে ত্রাণ সামগ্রী রাখা হয়েছিল। ময়দার মতো নিত্য ব্যবহার্য জিনিসপত্র কিনতে এখানে মানুষ জড়ো হয়েছিল। ভেতরে ঢোকার পর লোকজনের মধ্যে মালামাল নেওয়ার প্রতিযোগিতা হয়।জাতিসংঘ এক বিবৃতিতে বলেছে- এটা উদ্বেগের বিষয়। গাজায় স্থানীয় শাসন ব্যর্থ হয়েছে। সিভিল অর্ডার ভেঙ্গে পড়তে শুরু করেছে।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর

ট্রেন্ডিং খবর