প্রভাত বাংলা

site logo
Breaking News
||T20 WC 2024: তারকা খেলোয়াড়ের বড় ঘোষণা, দেশে ফেরার আগে বললেন- এটাই আমার শেষ বিশ্বকাপ||জওয়ানের মুক্তির ৭ মাস পর শাহরুখ খানকে নিয়ে এই বক্তব্য দিলেন বিজয় সেতুপতি ||Horoscope Tomorrow: তুলা এবং কুম্ভ রাশির জাতকদের সাবধান হওয়া উচিত, এই ব্যক্তিদের ভাগ্য রবিবার উজ্জ্বল হতে পারে||নির্জলা একাদশী উপায়ঃ নির্জলা একাদশীর দিন এই ব্যবস্থাগুলি করুন, অর্থের অভাব হবে না কখনও||জগন্নাথ রথযাত্রা 2024: ভগবান জগন্নাথ বোন সুভদ্রার সাথে যাত্রায় যাবেন, বিশেষ পোশাক পরবেন||আম্বালা স্টেশনে পাওয়া চিঠি ‘বোমা’; বহু মন্দির উড়িয়ে দেওয়ার হুমকি||লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল এমভিএকে উৎসাহে পূর্ণ করেছে, বিধানসভা নির্বাচনে একসঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার ঘোষণা||উত্তরবঙ্গে বিপদসীমা ছুঁতে পারে তিস্তা! উত্তর সিকিমে এখনও আটকা পড়েছে 1200 পর্যটক ||বাংলার সহিংসতার খোঁজ নিতে কমিটি গঠন করেছে বিজেপি||পশ্চিমবঙ্গে ফের মুখোমুখি মমতা ও রাজ্যপাল, নতুন বিধায়কদের শপথ নেওয়া নিয়ে অচলাবস্থা

Badruddin Ajmal : বদরুদ্দিন আজমল বলেছেন- মুসলমানরা ধর্ষণ, ডাকাতি ও ডাকাতির ক্ষেত্রে এক নম্বরে, এটা শিক্ষার অভাবের কারণে

Facebook
Twitter
WhatsApp
Telegram
বদরুদ্দিন আজমল

অল ইন্ডিয়া ইউনাইটেড ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট অফ আসামের প্রধান মাওলানা বদরুদ্দিন আজমল ধর্ষণ, চুরি, ডাকাতি এবং ডাকাতির মতো অপরাধে মুসলমানদেরকে এক নম্বরে বর্ণনা করেছেন।তিনি বলেন, কারাগারে যাওয়ার ক্ষেত্রেও আমরা এক নম্বরে আছি। 20 অক্টোবর আসামে এক অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেছিলেন। সমালোচনার পরও তিনি তার বক্তব্যে অটল।

শুক্রবার একটি গণমাধ্যমকে তিনি বলেন, আমি ভুল কিছু বলিনি। অপরাধে জড়িয়ে পড়ার অভ্যাস শিক্ষার অভাবের সাথে সরাসরি জড়িত।

আমাদের বাচ্চাদের স্কুলে যাওয়ার সময় নেই, কিন্তু জুয়া খেলার সময় আছে
বদরুদ্দিন আজমল, আসামের গোয়ালপাড়ায় 20 অক্টোবর একটি অনুষ্ঠানে মুসলিম সম্প্রদায়ের শিক্ষার অভাব নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছিলেন এবং বলেছিলেন যে এর কারণে মুসলমানরা আরও অপরাধমূলক কর্মকাণ্ডে জড়িয়ে পড়ছে।

তিনি বলেন, চুরি, ডাকাতি, ডাকাতি, ধর্ষণ ইত্যাদি অপরাধে আমরা এক নম্বরে আছি। জেলে যাওয়ার ক্ষেত্রেও আমরা নাম্বার-১। আমাদের বাচ্চাদের স্কুলে যাওয়ার সময় নেই, কিন্তু জুয়া খেলা এবং মানুষকে ঠকানোর জন্য অনেক সময় আছে। এসব অন্যায় কাজে কারা জড়িত, মুসলমানরা জড়িত। এটি একটি দুঃখজনক বিষয়।

মানুষ চাঁদ-সূর্যে যাচ্ছে, আর আমরা জেলে গিয়ে পিএইচডি করছি। যে কোন থানায় যান, দেখবেন কারা নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠ – আব্দুর রহমান, আব্দুর রহিম, আব্দুর মজিদ, বদরুদ্দিন, সিরাজুদ্দিন, ফখরুদ্দিন – এটা কি দুঃখজনক নয়?

বিতর্কের পরেও নিজের কথায় অটল
তার বক্তব্য নিয়ে বিতর্ক থাকলেও বদরুদ্দিন আজমল তার বক্তব্যে অটল রয়েছেন। শুক্রবার একটি নিউজ চ্যানেলকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, আমি বিশ্বজুড়ে মুসলিম সম্প্রদায়ের শিক্ষার অভাব দেখেছি। আমি অনেকবার বলেছি যে আমাদের ছেলেমেয়েরা লেখাপড়া করে না, উচ্চশিক্ষা নেয় না, এমনকি ম্যাট্রিকুলেশনও করে না। তরুণদের শিক্ষার গুরুত্ব জানাতে অপরাধে 1নম্বর কথা বলেছিলাম।

ডাক্তার বা ইঞ্জিনিয়ার মুসলিম সম্প্রদায় থেকে আসে না
তিনি বলেন, মুসলিম সম্প্রদায়ের উন্নয়ন না হওয়ার একটি বড় কারণ এখানে শিক্ষার অভাব। আমরা শিক্ষা নিয়ে সরকারকে দোষারোপ করি, কিন্তু তারা আমাদের সংখ্যালঘু এলাকা থেকে ডাক্তার বা ইঞ্জিনিয়ার চাইলে আমরা দিতে পারি না। আমাদের শিক্ষার হার বাড়াতে হবে। এ জন্য আমাদের তরুণদের পড়াশোনায় উৎসাহিত করতে হবে। শিক্ষার অভাবই সকল অনিষ্টের মূল।

মেয়েদের সাথে কথা বলার সময় খারাপ উদ্দেশ্য রাখবেন না
বদরুদ্দিন আজমল বলেন, যেসব ছেলে মেয়েদের দেখে উত্তেজিত হয়, আমি তাদের বলতে চাই যে ইসলাম বলে যে আচরণের সঠিক উপায় আছে। আমরা যখন বাজারে বা জনসমক্ষে থাকি এবং সেখানে নারীদের দেখি, তখন আমাদের দূরে তাকানো উচিত।

ছেলেদের মনে রাখতে হবে তাদের ঘরেও নারী আছে, তারা যদি তাদের মা-বোনের কথা চিন্তা করে তাহলে তাদের মনে কখনো ভুল চিন্তা আসবে না।

কে বদরুদ্দিন আজমল
বদরুদ্দিন আজমল আসামের একজন সুগন্ধি ব্যবসায়ী। তিনি জমিয়ত উলেমা-ই-হিন্দের আসাম সভাপতি। 2005 সালে AIUDF প্রতিষ্ঠার পর থেকে তিনি এর সভাপতিও। 2009 সাল থেকে তিনি ধুবরি থেকে লোকসভা সাংসদ ছিলেন। আসামের 126 আসনের বিধানসভায় AIUDF এর 15টি আসন রয়েছে। আসামের বাংলাভাষী মুসলমানদের মধ্যে আজমলের গভীর প্রভাব রয়েছে।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর

ট্রেন্ডিং খবর