প্রভাত বাংলা

site logo
সাঁইথিয়া

‘সাঁইথিয়ার প্রতিবাদ ইস্যুতে রাহুল-সুজনের প্রতিক্রিয়া, কী বললেন দুই বর্ষীয়ান নেতা ?

পঞ্চায়েত নির্বাচনের ফাঁকে বীরভূমের সাঁইথিয়ায় জনসংযোগে গিয়ে গ্রামবাসীর ক্ষোভের মুখে পড়তে হল শতাব্দী রায়কে। গতকাল সাঁইথিয়া ব্লকের হাটোরা গ্রামে গিয়েছিলেন বীরভূমের তৃণমূল সাংসদ। স্থানীয় মহিলারা শতাব্দীর কাছে সরকারি প্রকল্প বাড়িতে দুর্নীতি ও স্বজনপ্রীতির অভিযোগ করেছেন। এরপর বীরভূমের সাংসদ বলেন, ‘এটা অনেক বেশি পেয়েছে। আর যারা পাননি তারা পাবেন। এজন্য সরকার দ্বারস্থ হয়েছে। আর পাল্টা টার্গেট রাহুল-সুজনের।

‘জনগণের আন্দোলন শুরু হচ্ছে’, রাহুল সিনহা সাঁইথিয়ায় তৃণমূল সাংসদকে ঘিরে গ্রামবাসীদের বিক্ষোভের বিষয়ে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘ওরা জনগণের টাকা চুরি করছে। অর্থের পাহাড় তৈরি করা তাই এটি একটি ভালো লক্ষণ। মানুষ তার বিরুদ্ধে সোচ্চার হচ্ছে। যা আগে দেখা যেত না। বাম নেতা সুজন চক্রবর্তীও দীর্ঘদিনের বঞ্চনার বিষয়ে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছেন। কাকতালীয়ভাবে পঞ্চায়েত নির্বাচনের ফাঁকে বীরভূমের সাঁইথিয়ায় জনসংযোগে গিয়ে গ্রামবাসীর ক্ষোভের মুখে পড়তে হয়েছিল শতাব্দী রায়কে। গতকাল সাঁইথিয়া ব্লকের হাটোরা গ্রামে গিয়েছিলেন বীরভূমের তৃণমূল সাংসদ। স্থানীয় মহিলারা শতাব্দীর কাছে সরকারি প্রকল্প বাড়িতে দুর্নীতি ও স্বজনপ্রীতির অভিযোগ করেছেন। দুয়ারে সরকারের কর্মসূচির মাধ্যমে সমাধানের আশ্বাস দিয়েছেন তৃণমূল সাংসদ। এটাই গণবিপ্লবের প্রথম ধাপ বলে তৃণমূলকে কটূক্তি করল বিজেপি। পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে বীরভূমের তৃণমূল সাংসদ শতাব্দী রাই জনসংযোগে নেমে গ্রামবাসীদের রোষের মুখে পড়তে হল। সরকারি প্রকল্পে বাড়ি, শৌচাগার, পানীয় জল সহ নানা পরিষেবা না পাওয়ার অভিযোগ গ্রামবাসীদের। শনিবার সাঁইথিয়া, বীরভূমের ১ নম্বর হাটোরায় সাংসদ এক জনসংযোগ কর্মসূচিতে অংশ নেন শতাব্দী।

Read More : শুভেন্দুর সভার আগে অশান্তিতে জড়িতদের ধরপাকড়, গ্রেফতার ৪৫

সেখানে উপস্থিত ছিলেন সাঁইথিয়া ব্লক তৃণমূল সভাপতি সাবির আলি সহ স্থানীয় নেতারা। এমপির ওপর ক্ষুব্ধ স্থানীয় বাসিন্দাদের একাংশ! সরকারি প্রকল্পে বহু মানুষ ঘর পায়নি বলে অভিযোগ ওঠে। কিন্তু দুবার কে পেল! আরেক গ্রামবাসীর অভিযোগ, বারবার শৌচাগার তৈরির প্রতিশ্রুতি দিলেও কাজ হয়নি! গ্রামবাসীদের অভিযোগ শুনে সমস্যা সমাধানের আশ্বাস দিয়েছেন বীরভূমের তৃণমূল সাংসদ। বীরভূমের তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ শতাব্দী রায়ের কথায়, যাঁরা এখনও বাড়ি পাননি তাঁরাই পাবেন। অধিকাংশ মানুষের আছে. এজন্য সরকারের কর্মসূচি করা হয়েছে। যাতে সবাই পায়

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *